করাচিতে বিমান দুর্ঘটনায় নিহত বেড়ে ৯৭

নিউজ ডেস্ক: পাকিস্তানের করাচিতে আবাসিক এলাকায় ৯৯ জন আরোহী নিয়ে বিধ্বস্ত হওয়া এয়ারবাসটির ধ্বংসাবশেষ থেকে এখন পর্যন্ত ৯৭ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এ ছাড়া বিধ্বস্ত বিমানটি থেকে দুজনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের বরাত দিয়ে পাকিস্তানের ডন অনলাইন এসব তথ্য জানিয়েছে।

খবরে বলা হয়, শুক্রবার ৯১ জন যাত্রী ও ৮ জন ক্রু নিয়ে লাহোর থেকে করাচি যাচ্ছিল পাকিস্তানের রাষ্ট্রীয় বিমান সংস্থার (পিআইএ) এ-৩২০ এয়ারবাসটি।

করাচির জিন্নাহ আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরের কাছে একটি মডেল কলোনিতে এ-৩২০ এয়ারবাসটি বিধ্বস্ত হয়। বিমানটি জিন্নাহ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরেই অবতরণের কথা ছিল এটির।

বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেছেন, উড়োজাহাজটি অবতরণের ঠিক আগে দিয়ে যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে চাকা খুলতে পারছিল না।

পিআইএ’র প্রধান নির্বাহী এয়ার ভাইস মার্শাল এরশাদ মালিক বলেন, পাইলট ট্রাফ্রিক কন্ট্রোল রুমে যান্ত্রিক ত্রুটির কথা জানিয়েছিলেন।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান এ ঘটনায় গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন। দুর্ঘটনার কারণ জানতে যথাযথভাবে তদন্তের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তিনি।

ad
ad

আন্তর্জাতিক সর্বশেষ

ad
ad

আন্তর্জাতিক সর্বাধিক পঠিত

আগের সংবাদ
পরের সংবাদ