ফ্রি অফারের প্রতিযোগিতায় মোবাইল অপারেটরগুলো

নিউজ ডেস্ক: করোনা দুর্যোগে ঘরে থাকার এই সময়ে ফ্রি টকটাইম আর ইন্টারনেট অফারে গ্রাহকদের আকৃষ্ট করার প্রতিযোগিতায় নেমেছে বড় মোবাইল অপারেটরগুলো। টেলিকম খাত বিশ্লেষকরা বলছেন, এমন প্রতিযোগিতায় গ্রাহক সাময়িকভাবে লাভবান হলেও আর্থিক ঝুঁকির মুখে পড়ছে ছোট অপারেটররা।

করোনার কারণে এপ্রিলে রিচার্জ না করা বা সিমে টাকা না থাকা এক কোটি গ্রাহককে ১০ কোটি মিনিট ফ্রি টকটাইম দেয়ার ঘোষণা দেয় গ্রামীণ ফোন। এছাড়া নির্দিষ্ট সময়ে কম কলরেট এবং ২৫ হাজার কোভিড চিকিৎসকের জন্য মাত্র ১ টাকায় ৩০ জিবি ইন্টারনেট ডাটার ঘোষণা দেয়।

দু’দিন পরই নিজেদের ১ কোটি ৩০ লাখ গ্রাহককে ফ্রি টকটাইম এবং ফ্রি ইন্টারনেট ব্যবহারের সুযোগ দেয় রবি।

এদিকে বসে নেই বাংলালিংকও। বাংলালিংক তাইমুর বলেন, প্রতিযোগিতা না, ট্যারিফ রেগুলেশনকে ফলো না করে একটি ঘোষিত এসেম্পি অপারেটর এইভাবে প্রাইসিং করার সুযোগ করে দেয়া।

এক বিবৃতিতে তাদের এমন অভিযোগকে দুঃখজনক বলেছে গ্রামীণফোন।

প্রতিযোগিতামূলক বাজার গ্রাহকদের জন্য ভাল হলেও দীর্ঘমেয়াদে নেতিবাচক প্রভাব ফেলতে পারে বলে সতর্ক করছেন টেলিকম বিশ্লেষকরা।

টেলকম খাত বিশেষজ্ঞ জাহিদুল ইসলাম সজল বলেন, আমরা দেখছি বড়-ছোট অপারেটররা একে অপরের পরিতপক্ষ হয়ে যুদ্ধ করছে। এতে দীর্ঘমেয়াদে নেতিবাচক প্রভাব ফেলতে পারে।

ad
ad

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সর্বশেষ

ad
ad

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সর্বাধিক পঠিত

আগের সংবাদ
পরের সংবাদ