Home / slider / এরশাদের অবস্থার অবনতি, রওশনসহ নেতাকর্মীরা হাসপাতালে

এরশাদের অবস্থার অবনতি, রওশনসহ নেতাকর্মীরা হাসপাতালে

Loading...

রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) চিকিৎসাধীন জাতীয় সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা, সাবেক রাষ্ট্রপতি এবং জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি হয়েছে বলে জানিয়েছেন দলের মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গা। রোববার রাতে সংবাদমাধ্যমকে তিনি এ কথা বলেন। পূর্বপশ্চিমবিডি

মশিউর রহমান রাঙ্গা বলেন, আমি খোঁজ নিয়ে জেনেছি তার অবস্থা সংকটাপন্ন। যে কোনো সময় তাকে লাইফ সাপোর্টে নিতে হতে পারে।

তিনি আরও বলেন,এরশাদের ফুসফুসে পানি চলে এসেছে, ইনফেকশনও দেখা দিয়েছে।। পরে শ্বাসকষ্ট বেড়ে যাওয়ায় তাকে অক্সিজেন দেওয়া হয়।

এদিকে, এরশাদের শারীরিক অবস্থার অবনতির খবর পেয়ে হাসপাতালে ভিড় জমাতে শুরু করেছেন তার পরিবারের সদস্য এবং জাপা’র নেতাকর্মীরা। এরশাদের স্ত্রী রওশন এরশাদ, দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান জি এম কাদের, সাবেক মহাসচিব এ বি এম রুহুল আমিন হাওলাদার, কাজী ফিরোজ রশীদ, আনোয়ার হোসেন মঞ্জু, মেজর (অব.) মান্নানসহ অন্যান্য নেতাকর্মীরা সিএমএইচএ উপস্থিত হয়েছেন।

রক্তে হিমোগ্লোবিন ও লিভারে দীর্ঘ দিনের সমস্যার পাশাপাশি নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে বুধবার (২৬ জুন) সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) ভর্তি হন এরশাদ। তাকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) রেখে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছিল।

এর আগে সন্ধ্যায় ৬টার দিকে বনানীতে জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক ব্রিফিংয়ে এরশাদের ছোট ভাই জি এম কাদের বলেছিলেন, দেশে এরশাদের যে চিকিৎসা চলছে, তাতে আমরা সন্তুষ্ট। আশা করি, শিগগিরই তিনি সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে উঠবেন। আপনারা সবাই তার জন্য দোয়া করবেন।

জি এম কাদের আরও বলেন, চার দিন আগে যে শারীরিক অবস্থা নিয়ে এরশাদ হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন, সে অবস্থার অনেকটাই উন্নতি হয়েছিল। তবে আজ (রোববার) সকালে তার শারীরিক অবস্থার আবার অবনতি হয়। এরপর আর তার শারীরিক অবস্থার উন্নতি হয়নি। এরশাদের ফুসফুসে ইনফেকশন রয়েছে। তাকে অক্সিজেন দেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গেল ১২ ডিসেম্বরে ‘উন্নত চিকিৎসার জন্য’ সিঙ্গাপুরে যান এরশাদ। পরে নির্বাচনে জয়লাভের পর দেশে ফিরে শপথ নেন তিনি। পরে ২০ জানুয়ারি ফের চিকিৎসা নিতে সিঙ্গাপুর যান। দেশে ফেরেন ৪ ফেব্রুয়ারি। এরপর থেকে সিএমএইচেই চিকিৎসা নিচ্ছেন এরশাদ।

(Visited 1 times, 1 visits today)
Loading...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

three × 1 =