Templates by BIGtheme NET
Home / বিজ্ঞান- প্রযুক্তি / পাসওয়ার্ড মনে রাখার যন্ত্রণা থেকে বাঁচাতে চাইছে গুগল

পাসওয়ার্ড মনে রাখার যন্ত্রণা থেকে বাঁচাতে চাইছে গুগল

Loading...

স্মার্টফোন বা অনলাইন অ্যাকাউন্টের নিরাপত্তার কথা ভেবে পাসওয়ার্ড ব্যবহার করতে হয় স্মার্টফোন বা অনলাইন ব্যবহারকারীদের। কিন্তু পাসওয়ার্ড মনে রাখাটা প্রায় সবার কাছেই বিরক্তিকর।
তা স্বত্বেও পাসওয়ার্ড ব্যবহার ও মনে রাখা ছাড়া গত্যন্তর নেই কারো। মনে রাখার সুবিধার্থে অনেকে একাধিক অনলাইন অ্যাকাউন্টে একই পাসওয়ার্ড ব্যবহার করেন। কিন্তু এ নিয়েও দুশ্চিন্তায় থাকতে হয়। প্রযুক্তি বিশ্লেষকরাও মনে করেন, প্রচলিত পাসওয়ার্ড পদ্ধতি যথেষ্ট বিরক্তিকর আর সেকেলে। এমনকি, এই পাসওয়ার্ড সহজেই হ্যাকও হয়ে যেতে পারে।
এই বাস্তবতায় প্রযুক্তি বিষয়ক সংবাদ মাধ্যম সিনেট এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, পাসওয়ার্ড মনে রাখার ঝক্কি থেকে মুক্তি দিতে চাইছে গুগল। এ জন্য পাসওয়ার্ড ম্যানেজার ‘ড্যাশলেইন’-এর সাথে অংশীদারিত্ব চুক্তি করেছে মার্কিন প্রতিষ্ঠানটি।
এ ব্যাপারে বৃহস্পতিবার ড্যাশলেইন কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তারা গুগলের সাথে নতুন এক প্রজেক্টে কাজ করছে, যা অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের পাসওয়ার্ড সংরক্ষণের সুবিধা দেয়ার মাধ্যমে তাদের স্ব স্ব মোবাইল অ্যাপে সহজে ও নিরাপদে লগ ইন থাকার সুযোগ দেবে। শুধু মোবাইল অ্যাপেই নয়; এর মাধ্যমে বিভিন্ন ওয়েবসাইটের জন্য পাসওয়ার্ড তৈরি, সংরক্ষণ ও ব্যবহার করা যাবে। এতে পাসওয়ার্ড মনে রাখার দরকারই হবে না।
গুগল-ড্যাশলেইনের এই প্রজেক্টের নাম ‘ইউ অনলি লগ ইন ওয়ান্স’; সংক্ষেপে ওয়াইওএলও। যেসব কোম্পানি পাসওয়ার্ড ম্যানেজার তৈরি করতে চায় তারাও এই প্রজেক্টে জড়িত হতে পারবে।
পাসওয়ার্ড মনে রাখার যন্ত্রণা থেকে ব্যবহারকারীদের বাঁচাতে বছর খানেক আগ থেকে নানা ঘোষণা দিয়ে আসছে গুগল। ২০১৫ সালের ডিসেম্বরে প্রতিষ্ঠানটি এক ঘোষণায় জানায়, পাসওয়ার্ডের ঝক্কি দূর করতে বিকল্প পদ্ধতি তৈরি করেছে তারা। এ পদ্ধতি ব্যবহারে পাসওয়ার্ডের বদলে শুধু ‘ইয়েস’ বা ‘নো’ অপশনে ক্লিক করেই জিমেইল, ইউটিউবের মতো সেবার আকাউন্টে প্রবেশের সুযোগ পাবেন গ্রাহক।
এই ঘোষণার ঠিক পাঁচ মাস পরে প্রতিষ্ঠানটি আবার ঘোষণা দেয়, ‘ট্রাস্ট এপিআই’ নামের নতুন ধরনের রিকগনিশন সফটওয়্যার আনার পরিকল্পনা রয়েছে তাদের। এই প্রযুক্তি অ্যাপ্লায়েড সায়েন্সের সাহায্যে কাজ করবে, যা ব্যবহারকারীকে তার টাইপ, কথা বলা, হাঁটাচলা ইত্যাদির মাধ্যমে চিনবে। এতে আলাদা করে আর পাসওয়ার্ড দিতে হবে না।
Loading...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

11 − four =