Templates by BIGtheme NET
Home / slider / সৌদি-ইসরায়েলের গোপন সামরিক সম্পর্ক ফাঁস!

সৌদি-ইসরায়েলের গোপন সামরিক সম্পর্ক ফাঁস!

Loading...

সৌদি আরব ও ইসরায়েলের মধ্যে গোপন সহযোগিতা সম্পর্ক রয়েছে বলে দাবি করেছে সুইজারল্যান্ডের একটি দৈনিক পত্রিকা। আনুষ্ঠানিকভাবে কোনো সম্পর্ক না থাকলেও উভয় দেশের মধ্যে সামরিক সহযোগিতা চলছে বলেও পত্রিকাটির প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে। খবর মিডল ইস্ট মনিটরের।

বাসলার জেইটুং নামের ওই পত্রিকার খবরে বলা হয়েছে, উভয় দেশের মধ্যে কোনো ধরনের আনুষ্ঠানিক সম্পর্ক না থাকলেও অঞ্চলটিতে ইরানের প্রভাব ঠেকাতে সৌদি আরব ও ইসরায়েল গোপন সম্পর্ক গড়ে তুলেছে।

পত্রিকাটির প্রতিবেদক পিয়েরে হিউমান লিখেছেন, কয়েক বছর ধরেই ইসরায়েলের সঙ্গে আনুষ্ঠানিক স্বাভাবিক সম্পর্ক গড়ে তুলতে রাজি নয় সৌদি আরব। ইসরায়েল-ফিলিস্তিন সংঘাত সমাধান ও আরব দেশগুলো তা ঘোষণার আগ পর্যন্ত সৌদি আরব ইসরায়েলের সঙ্গে রাষ্ট্রদূত বিনিময় করবে না।

প্রতিবেদনটিতে বলা হয়েছে, কিন্তু সৌদি আরব ও ইসরায়েলের মধ্যে ঘনিষ্ঠ গোপন সহযোগিতার সম্পর্ক বিদ্যমান। এর লক্ষ্য হচ্ছে, ইরানের প্রভাব বৃদ্ধি ঠেকানো এবং এ অঞ্চলে দেশটির আঞ্চলিক উচ্চাকাঙ্ক্ষা ঠেকানো।

এ তথ্য জানানোর ক্ষেত্রে সৌদি আরবের একটি অজ্ঞাত সূত্রের বরাত দেওয়া হয়েছে পত্রিকাটিতে। ওই সূত্র জানায়, ইসরায়েলের কাছ থেকে অস্ত্র কেনার সম্ভাবনা বিবেচনা করছে সৌদি আরব। এর মধ্যেই রিয়াদ ট্যাঙ্কসহ বিভিন্ন প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা কেনার আগ্রহ দেখিয়েছে। এ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা দিয়ে গাজা উপত্যকা থেকে ছোড়া রকেট সফলভাবে ধ্বংস করতে পেরেছে বলে দাবি ইসরায়েলের।

পত্রিকাটি আরও লিখেছে, ইয়েমেন থেকে ছোড়া ক্ষেপণাস্ত্র ঠেকাতে চায় সৌদি আরব। তেল আবিব ও রিয়াদের পর্যবেক্ষকরা নিশ্চিত করেছেন ইসরায়েল ও সৌদি আরবের গোয়েন্দাদের মধ্যে সহযোগিতা অনেক উচ্চ পর্যায়ে। যদিও ইসরায়েলের সঙ্গে কোনো ধরনের সম্পর্কের কথা প্রকাশ্যে স্বীকার করে না সৌদি আরব।

প্রতিবেদনে আরও জানানো হয়, সৌদি আরবের বেশ কয়েকজন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি প্রকাশ্যেই ইসরায়েলি কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন। গত বছর অক্টোবরে ইসরায়েল ও সৌদি আরবের গোয়েন্দাপ্রধানরা ওই অঞ্চলে মার্কিননীতি নিয়ে তথ্য বিনিময় করেন। সূত্র : সমকাল

Loading...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

19 + 16 =